Corona-Update

বাংলারশিক্ষা:
গতকাল সোমবার আইইডিসিআর এর পরিচালক মীরজাদী সেব্রিনা জানিয়েছেন, করোনা ভাইরাসে আক্রান্তদের মধ্যে মাদারীপুর জেলার রয়েছে ১০ জন।

মাদারীপুর সিভিল সার্জনের পরিসংখ্যানবিদ মীর রিয়াজ আহমেদ জানান, গত ২৪ ঘন্টায় মাদারীপুরে হোম কোয়ারেন্টাইনে নতুন করে আছে ১৮ জন। আইসোলেশনে রয়েছে ৩ জন ও প্রাতিষ্ঠানিক কোয়ারেন্টানে আছে ৩ জন। বাতিল হয়েছে ২৬ জনের হোম কোয়ারেন্টাইন। বর্তমানে আজ হোম কোয়ারেন্টাইনে আছে ৩২৬ জন। এ নিয়ে মাদারীপুর জেলায় সর্বমোট হোমকোয়ারেন্টে ৬৩৯ জন এবং শেষ হয়েছে ৩১৩ জনের হোম কোয়ারেন্টাইন।

আজ (মঙ্গলবার) বিকেল থেকে প্রশাসনকে সহায়তার জন্য মাদারীপুরে ৮ প্লাটুন সশ্রস্ত্রবাহিনী নামবে বলে জানিয়েছে প্রশাসন। করোনাভাইরাস সংক্রমন এড়াতে মাদারীপুরের সাথে দক্ষিণাঞ্চলের জেলা বরিশালের সাথে যোগাযোগের ঢাকা-বরিশাল মহাসড়ক ছাড়া সকল অভ্যন্তরীণ পথ বন্ধ করে দিয়েছে প্রশাসন। এছাড়া মাদারীপুর পৌরসভা এলাকায় শুধুমাত্র নিত্য প্রয়োজনীয় দ্রব্যের দোকান ছাড়া সমস্ত দোকান বন্ধের ঘোষণা দিয়েছে জেলা করোনা প্রতিরোধ কমিটি।

Corona_Road-stop

এদিকে লকডাউন শিবচরে চলছে সুনসান নিরবতা। চিহ্নিত এলাকার হোম কোয়ারেন্টাইনে থাকা প্রবাসী ও বন্ধ থাকা নিম্ন আয়ের মানুষের ঘরে ঘরে খাবার, ওষুধসহ বিভিন্ন উপকরন আজোও পৌঁছে দিচ্ছে প্রশাসন।

অপরদিকে, রাজধানী ঢাকার সাথে দক্ষিণাঞ্চলের ২১ জেলার মানুষের যাতায়াতের অন্যতম পথ কাঁঠালবাড়ি-শিমুলিয়া নৌরুট। এই নৌরুট দিয়ে প্রতিদিন হাজার হাজার মানুষ আসা যাওয়া করলেও ঘাট এলাকায় করোনা ভাইরাস প্রতিরোধে নেই সচেতনামূলক ব্যবস্থা। এতে সাধারণ মানুষের মাঝে সহজে এই রোগ ছড়িয়ে পড়তে বলে ধারণা চলচলকারীদের। এমতাবস্থায়, ঘাট এলাকায় সার্বক্ষনিক নজরদারি বাড়ানোর পাশাপাশি চলাচল সীমিত করে দেবার দাবী যাত্রীদের। যদিও সংশ্লিষ্টরা বলছে, এ ব্যাপারে সরকারের উচ্চ পর্যায়ে নির্দেশনা পেলে নেয়া হবে ব্যবস্থা।